ব্রনমুক্ত উজ্জ্বল ত্বক পাওয়ার ঘরোয়া উপায়

ব্রনমুক্ত উজ্জ্বল ত্বক পাওয়ার ঘরোয়া উপায়

ব্রনমুক্ত উজ্জ্বল ত্বক পাওয়ার ঘরোয়া উপায়

ব্রণ মানেই ঝামেলা আর কোনো অনুষ্ঠানে যাওয়ার আগে ব্রণ হলে তো কোনো কথাই নেই। নিয়মিত ত্বকের যত্ন নিলেও মাঝেমধ্যে দুই-একটা ব্রণ দেখা দিতে পারে। সে ক্ষেত্রে দ্রুত এই ব্রণ দূর করার জন্য রয়েছে কিছু সহজ উপাদান তাই আজ আমি ব্রণের ফোলা ভাব কমানোর জন্য কয়েকটি সহজ উপায় আপনাদের সাথে শেয়ার করবো। 

১. বড়ফ

এই সহজ উপাদান হচ্ছে বড়ফ ব্রণের আকার ছোট করতে সাহায্য করে। পাশাপাশি লালচে ও সংক্রমণ কমাতেও সাহায্য করে। একটি পাতলা কাপড়ে একটু বড়ফ নিয়ে হালকাভাবে তা আপনার ব্রণের ওপর কয়েক মিনিট মালিশ করুন ৫ মিনিট পর আরও একটি বরফের টুকরো নিয়ে ঠিক একইভাবে মালিশ করুন 
তবে আপনি যখন বরফের টুকরো দিয়ে মেসেজ করবেন তখন একসাথে বেশি বরফ দিয়ে করবেন না। আর এইভাবে দিনে ২ বার বরফ ঘষলে তাড়াতাড়ি আপনার ব্রণ গুলো দূর হয়ে যাবে। 

২. টুথপেস্ট

আরেকটি হচ্ছে টুথপেস্ট দ্রুত ব্রণ দূর করতে সাদা পেস্ট সবথেকে ভালো কাজ করে। রাতে ঘুমোতে যাওয়ার আগে। ব্রনের উপর সামান্য টুথপেস্ট লাগিয়ে রাখুন আর এই ভাবেই ঘুমিয়ে পড়ুন সারারাত থাকালে এটা ম্যাজিকের মতো কাজ করবে। 

৩. লেবু

আরেকটা রেমিডি হল লেবু লেবুতে থাকা সাইট্রিক এসিড তেল উৎপাদন কমিয়ে ফেলে। লেবুর রস অ্যান্টিসেপটিক এর মত কাজ করে যা সংক্রমণ ও লালচে ভাব কমিয়ে ফেলে। ব্রণের উপর তাজা লেবুর রস লাগিয়ে যতটা বেশি সময় রেখে দিন তবে ত্বকের জ্বালাভাব সৃষ্টি হলে জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। 
আর আপনার ত্বক যদি সেনসিটিভ না হয়ে থাকে তাহলে সারারাত লেবুর রস আপনার ত্বকে লাগিয়ে রাখুন। পরদিন সকালে তা পরিষ্কার করে নিন এতে করে খুব দ্রুত আপনার ত্বক থেকে ব্রণ দূর হয়ে যাবে। 

Home Remedies for Bronchitis

৪. চন্দন

আরেকটি চমৎকার উপাদান হচ্ছে চন্দন। চন্দনে রয়েছে  জীবানুনাশক উপাদান। এটা ব্রণ দূর করার পাশাপাশি লোমকূপ দূর করতেও সাহায্য করে। চন্দন গুরর সাথে গোলাপ জল মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করে নিন এবং সেটা আপনার ব্রণের ওপর লাগিয়ে নিন।
 তারপর এই ভাবেই ঘুমিয়ে পড়ুন। পরদিন সকালে জল দিয়ে আপনার ত্বককে পরিষ্কার করে নিন। নিয়মিত কিছুদিন এইভাবে ব্যবহার করলে আপনার ব্রণ পুরোপুরি দূর হয়ে যাবে। 
এর পাশাপাশি আপনার স্কিন ব্রাইট হবে । এবং ত্বকের মধ্যে অসাধারণ একটি উজ্জলতা চলে আসবে। 

আরো পড়ুন : গ্রীষ্মকালে স্ক্যাল্পের চুলকানির থেকে মুক্তি পাওয়ার উপায়

৫. মধু

মধুতে রয়েছে প্রাকৃতিক অ্যান্টিসেপটিক উপাদান এটি সংক্রমণ কমাতে সাহায্য করে। একটা ভালো ব্যান্ডের মধু আপনার ব্রণের ওপর লাগিয়ে রাখুন এবার এই ভাবেই ঘুমিয়ে পড়ুন। পরদিন সকালে জল দিয়ে পরিষ্কার করে নিন। এতে করে খুব দ্রুত আপনার ত্বক থেকে ব্রণ দূর হয়ে যাবে। 
আপনি যদি ব্রণ নিয়ে খুবই মুশকিল পরে থাকেন তাহলে এখানে বলা যেকোনো একটি উপাদান ব্যবহার করে দেখুন। এবং আপনার  ব্রণ গুলোকে খুব সহজে দূর করে ফেলুন।